ই-পেপার | রবিবার , ১৪ জুলাই, ২০২৪

মিরাজের বীরত্বে ভারতকে হারাল বাংলাদেশ

তিন ম্যাচ সিরিজের প্রথম ওয়ানডেতে ভারতকে হারিয়েছে বাংলাদেশ। রবিবার মিরপুর শেরেবাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে ভারতের দেওয়া ১৮৭ রানের লক্ষ্য তাড়া করতে নেমে এক উইকেটের জয় তুলে নিয়েছে টাইগাররা।

১৩৬ রানে ৯ উইকেট হারানো বাংলাদেশের শেষ উইকেটে দরকার ছিল ৫১ রান। উইকেটে ছিলেন মেহেদী হাসান মিরাজ ও মুস্তাফিজুর রহমান।

তাঁদের এই জুটি ৪ ওভার বাকি থাকতেই বাংলাদেশকে জয়ের বন্দরে নোঙর করায়। মিরাজ ৩৯ বলে ৩৮ ও মুস্তাফিজ ১১ বলে ১০ রানে অপরাজিত থাকেন।

রান তাড়া করতে নেমে বাংলাদেশের শুরুটা ভালো ছিল না। দীপক চাহারের করা বাংলাদেশ ইনিংসের প্রথম বলে রোহিত শর্মাকে ক্যাচ দেন ওপেনার নাজমুল হোসেন শান্ত। তিনে নামা এনামুল হক বিজয়ও সুবিধা করতে পারেননি। ২৯ বলে ১৪ রান করে ফেরেন তিনি। ২৬ রানে ২ উইকেট হারানো বাংলাদেশের হাল ধরেন ভারপ্রাপ্ত অধিনায়ক লিটন দাস ও সাকিব আল হাসান। তৃতীয় উইকেটে ৪৮ রান যোগ করেন দুজন। এরপর ৬৩ বলে একটি ছক্কা ও তিনটি চারে ৪১ রান করে আউট হন লিটন।

ভারপ্রাপ্ত অধিনায়কের বিদায়ের কিছুক্ষণ পর ফিরে যান সাকিবও। ৩৮ বলে ২৯ রান করেন এই অলরাউন্ডার। পঞ্চম উইকেটে মুশফিকুর রহিম ও মাহমুদ উল্লাহ যোগ করেন ৩৩ রান। এরপর মুশফিক-মাহমুদ উল্লাহ দুজনই বিদায় নেন। মুশির ব্যাট থেকে এসেছে ১৮ আর মাহমুদ উল্লাহর অবদান ১৪।

সুবিধা করতে পারেননি আফিফ হোসেনও (৬)। ‘ডাক’ মেরেছেন এবাদত হোসেন ও হাসান মাহমুদ। শেষ দিকে মিরাজ ও মুস্তাফিজই জয় এনে দেন বাংলাদেশকে। এই জয়ের ফলে তিন ম্যাচের সিরিজে ১-০ ব্যবধানে এগিয়ে গেল বাংলাদেশ।

এর আগে টসে জিতে ভারতকে ব্যাটিংয়ের আমন্ত্রণ জানান বাংলাদেশের ভারপ্রাপ্ত অধিনায়ক লিটন দাস। সাকিব আল হাসান ও এবাদত হোসেনের দুর্দান্ত বোলিংয়ে টিম ইন্ডিয়া গুটিয়ে যায় মাত্র ১৮৬ রানে। সর্বোচ্চ ৭৩ রান করেন লোকেশ রাহুল। অধিনায়ক রোহিত শর্মার ব্যাট থেকে এসেছে ২৭ রান। এ ছাড়া শ্রেয়াস আয়ার ২৪ ও ওয়াশিংটন সুন্দর ১৯ রান করেন।

তারকা ব্যাটার বিরাট কোহলি করতে পেরেছেন মাত্র ৯ রান। সাকিব ৩৬ রানে ৫টি উইকেট নিয়েছেন। কম যাননি পেসার এবাদত হোসেন, ৪৭ রানের বিনিময়ে ৪ উইকেট শিকার করেন তিনি।