ই-পেপার | রবিবার , ১৪ জুলাই, ২০২৪

চবিতে যৌন হয়রানির বিরুদ্ধে ছাত্রলীগ নেতার প্রতিবাদ সমাবেশ

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের (চবি) রসায়ন বিভাগের এক শিক্ষার্থীকে যৌন নিপীড়নের প্রতিবাদে বিভাগের এক শিক্ষকের বিরুদ্ধে মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সমাবেশ করেছে চবি শাখা ছাত্রলীগের সাবেক নেতাকর্মীরা। পরে এ ঘটনায় উপাচার্য বরাবর স্মারকলিপি প্রদান করেন তারা।

গতকাল বৃহস্পতিবার (১ ফেব্রুয়ারি) দুপুর ১টার দিকে অনুষ্ঠিত মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সমাবেশের নেতৃত্ব দেন চবি শাখা ছাত্রলীগের সাবেক যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মো. ইলিয়াস।

সমাবেশ শেষে চবি শাখা ছাত্রলীগের সাবেক যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মো. ইলিয়াস বলেন, চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের রসায়ন বিভাগের অধ্যাপক ড. মাহবুবুল মতিন নামের এক শিক্ষক নিজ বিভাগের শিক্ষার্থীকে যৌন হয়রানি করেছেন। যে বোন যৌন হয়রানির শিকার হয়েছে, আমি তার দায়িত্ব নেব। প্রশাসনকে বলতে চাই, আপনারা উপযুক্ত ব্যবস্থা গ্রহণ করুন, যদি না করেন তাহলে মনে রাখবেন আপনাদের ক্ষমতা থাকবে না। মাননীয় উপাচার্য, আপনার ওপর আমার বিশ্বাস আছে, আপনি চাইলে বিচার করতে পারবেন। আপনি চাইলে সব সম্ভব।


  • প্রশাসনকে বলতে চাই, আপনারা উপযুক্ত ব্যবস্থা গ্রহণ করুন, যদি না করেন তাহলে মনে রাখবেন আপনাদের ক্ষমতা থাকবে না। মাননীয় উপাচার্য, আপনার ওপর আমার বিশ্বাস আছে, আপনি চাইলে বিচার করতে পারবেন। আপনি চাইলে সব সম্ভব – ছাত্রলীগ নেতা মো. ইলিয়াস


এদিকে ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা ৭ দফা দাবি জানিয়ে উপাচার্যের নিকট স্মারকলিপি প্রদান করেন। দাবিগুলো হলো- সেন্ট্রাল ফিল্ড, ঝুপড়ি, ফরেস্ট্রি, বায়োলজি পুকুর ও বোটানিক্যাল পুকুর পাড়সহ যাবতীয় স্থানে পর্যাপ্ত আলো এবং সিসিটিভির ব্যবস্থা গ্রহণ করা; ক্যাম্পাসে খাবারের গুণগত মান বৃদ্ধি এবং মূল্য নিয়ন্ত্রণসহ যাবতীয় বিষয়গুলো তদারকি করা; জিরো পয়েন্ট, ফ্যাকাল্টিসমূহের টয়লেটসহ ক্যাম্পাসের সকল ডাস্টবিনগুলো নিয়মিত পরিষ্কার ও মোড়ে মোড়ে ডাস্টবিনের ব্যবস্থা করা।

এ ছাড়া শাটলের সময়সূচি বৃদ্ধি এবং শিক্ষার্থীদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করা; মাদকমুক্ত ক্যাম্পাস নিশ্চিত করা; ক্যাম্পাসে বহিরাগতদের প্রবেশ সংরক্ষিত করা এবং পরিবহন ভাড়া নির্ধারণ করে ভাড়া তালিকা নবায়ন করে প্রণয়ন করা এবং ক্লাসের নির্ধারিত সময় শেষ হওয়ার পর কোনো শিক্ষক যেন তার ব্যক্তিগত কক্ষে কোনো শিক্ষার্থীকে একা ডেকে না পাঠায় সে বিষয়টা বিবেচনায় রাখতে হবে।

একই ঘটনায় রসায়ন বিভাগের সাধারণ শিক্ষার্থীরা বৃহস্পতিবার  বেলা আড়াইটার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের শহীদ মিনারে মানববন্ধন ও প্রতিবাবাদ সমাবেশ করেন। এসময়  সাধারণ শিক্ষার্থীদের হাতে ঐ শিক্ষকের বিরুদ্ধে প্ল্যাকার্ড, ফেস্টুন নিয়ে আন্দোলন করতে দেখা যায়।

এর আগে গত ৩১ জানুয়ারী রসায়ন বিভাগের অধ্যায়নরত এক শিক্ষার্থী একই বিভাগের অধ্যাপক ড. মাহবুবুল মতিনের বিরুদ্ধে যৌন হয়রানির অভিযোগ এনে বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য বরাবর লিখিত অভিযোগ দেন।