ই-পেপার | রবিবার , ১৪ জুলাই, ২০২৪

পদ্মা সেতু পাড়ি দিয়ে প্রথম বার বাড়ি যাবেন প্রধানমন্ত্রী

আগামীকাল পদ্মা সেতু পাড়ি দিয়ে সড়ক পথে পরিবারের সদস্যদের নিয়ে বাড়ি যাবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। প্রধানমন্ত্রীর আগমনকে কেন্দ্র করে নতুন সাজে সেজেছে গোপালগঞ্জের টুঙ্গিপাড়া। তাঁর সফরকে নির্বিঘ্ন করতে নিরাপত্তার ব্যপক প্রস্তুতি নেওয়া হয়েছে।

আজ রবিবার (৩ জুলাই) গোপালগঞ্জের জেলা প্রশাসক শাহিদা সুলতানা প্রধানমন্ত্রীর সফরের বিষয়টি গণমাধ্যমকে নিশ্চিত করেন।

তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রীর আগমন উপলক্ষে সব প্রস্তুতি সম্পন্ন হয়েছে। তাঁর এ সফর নির্বিঘ্ন করতে ব্যাপক প্রস্তুতি নেওয়া হয়েছে। তিন স্তরের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে পোশাকে ও সাদা পোশাকে বিপুল সংখ্যক আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্য নিয়োজিত থাকবেন।

জানা যায়, সোমবার (৪ জুলাই) বেলা ১১টায় টুঙ্গিপাড়ায় পৌঁছাবেন প্রধানমন্ত্রী। এরপর জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের সমাধি সৌধ বেদীতে পুষ্পস্তবক অর্পণ করে শ্রদ্ধা জ্ঞাপন করবেন। প্রধানমন্ত্রী পরিবারের সদস্যদের নিয়ে বঙ্গবন্ধু ও তাঁর পরিবারের শহীদ সদস্যদের রূহের মাগফেরাত কামনা করে ফাতেহা পাঠ ও বিশেষ মোনাজাতে অংশ নিবেন।

এছাড়া পদ্মা সেতু হয়ে প্রথম প্রধানমন্ত্রী সড়কপথে টুঙ্গিপাড়ায় আসার খবরে জেলা ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা উচ্ছ্বসিত ও উদ্বেলিত। সোমবার টুঙ্গিপাড়ায় প্রধানমন্ত্রীকে অভিনন্দন ও স্বাগত জানানো হবে। একইভাবে টুঙ্গিপাড়া আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীদের পাশাপাশি সাধারণ মানুষ উচ্ছ্বসিত।

প্রধানমন্ত্রীর আগমন উপলক্ষে টুঙ্গিপাড়া হেলিপ্যাড, বঙ্গবন্ধুর স্মৃতি সংরক্ষণের উদ্দেশ্যে মধুমতি নদীতে নির্মিত দৃষ্টিনন্দন ঘাটলা পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন, সংস্কার ও শোভাবর্ধনের কাজ সম্পন্ন করা হয়েছে।

মধুমতি নদীর ওপর নির্মিত বঙ্গবন্ধুর স্মৃতিবিজরিত পাটগাতী ঘাটলায় যাওয়ার সড়ক জরুরি মেরামত ও সংস্কার করা হয়েছে। সড়কের পাশের জঙ্গল পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন করা হয়েছে। সড়কের উভয়পাশের গাছে রং করে শোভাবর্ধন করা হয়েছে।

তাছাড়া এরই মধ্যে সমাধিসৌধ কমপ্লেক্সের ধোয়ামোছা, পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতা ও শোভাবর্ধনের কাজ শেষ হয়েছে। প্রধানমন্ত্রী আসার আগ পর্যন্ত পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতার এ কাজ চলমান থাকবে।